বাংলাদেশ ক্রীড়া শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান – বিকেএসপি (bksp) আমাদের দেশের একমাত্র সরকারি ক্রীড়া শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। বাংলাদেশ ক্রীড়া শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ক্রীড়া মেধা সম্পন্ন খেলোয়াড়দের সাধারন শিক্ষাসহ দীর্ঘ মেয়াদী বিজ্ঞানভিত্তিক ক্রীড়া প্রশিক্ষন প্রদানের মাধ্যমে জাতীয় ও আন্তর্জাতিক মানের করে প্রস্তুত করা হয়।

বিকেএসপি তে ভর্তি

ঢাকার অদূরে সাভারে বিকেএসপির প্রধান কেন্দ্র অবস্থিত। এ ছাড়াও সিলেট, চট্টগ্রাম, বরিশাল, খুলনা ও দিনাজপুরে বিকেএসপির আরও ৫টি আঞ্চলিক কেন্দ্র আছে। বিকেএসপিতে শুধুমাত্র খেলাধুলাই হয় না এখানে নিয়ম মেনে পড়াশুনা ও খেলাধুলা একইসাথে করানো হয়। ক্যারিয়ার গড়ার জন্য একটি আদর্শ প্রতিষ্ঠান বিকেএসপি। শুধুমাত্র ছেলেরাই নয়, ছেলেদের পাশাপাশি মেয়ে শিক্ষার্থীদেরও এখানে ভর্তির সুযোগ আছে। একজন সুদক্ষ খেলোয়াড় তৈরি করতে যত আধুনিক সুবিধা থাকা দরকার তার সবই বিকেএসপিতে আছে।

বিভিন্ন শ্রেণীতে শিক্ষার্থী  বিকেএসপি তে ভর্তি (b k s p admission) করা হয়। সপ্তম শ্রেণিতে ভর্তি করা হয় ক্রিকেট, ফুটবল, শ্যুটিং, আর্চারি, হকি, জুডো, টেবিল টেনিস, উশু, তায়কোয়ানদো ও অ্যাথলেটিকসে। চতুর্থ ও ষষ্ঠ শ্রেণিতে ভর্তি করা হয় সাঁতার, বক্সিং, জিমন্যাস্টিকস ও টেনিসে। অষ্টম ও নবম শ্রেণিতে ভলিবল ও বাস্কেটবল বিভাগে ভর্তি করা হয়। নিম্নের চার্টএ বিস্তারিতভাবে খেলার নাম, বয়স, ন্যূনতম উচ্চতা ও কোন শ্রেণীতে ভর্তি করা হয় তা দেয়া হল।

বিকেএসপি

 

সপ্তম শ্রেণী থেকে দ্বাদশ শ্রেণী পর্যন্ত বিকেএসপিতে শিক্ষা কার্যক্রম পরিচালিত হলেও এর পাশাপাশি জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের আওতায় স্নাতক(পাস) এবং ক্রীড়াবিজ্ঞানের বিভিন্ন বিষয়ে ১০ মাস মেয়াদী ডিপ্লোমা কোর্স করানো হয় বিকেএসপিতে। নভেম্বর মাসের শেষের দিকে সাধারনত পত্রিকায় বিজ্ঞপ্তি দিয়ে শিক্ষার্থী বিকেএসপি তে ভর্তি করা হয়।

প্রাথমিক নির্বাচনঃ
• প্রথমে ঢাকা বি কে এস পি থেকে আবেদন ফর্ম সংগ্রহ করতে হবে। প্রাথমিক নির্বাচনের দিন প্রয়োজনীয় ক্রীড়া উপকরণ, ২ কপি পাসপোর্ট সাইজের রঙ্গিন ছবি, জন্ম নিবন্ধন, পিইসি, জেএসসি/জেডিসি ও নাগরিকত্ব সনদের সত্যায়িত কপি সঙ্গে আনতে হবে।
• শারীরিক যোগ্যতা ও প্রাথমিক ডাক্তারি পরীক্ষা নেয়া হবে।
• নির্দিষ্ট খেলা অনুযায়ী ব্যাবহারিক পরীক্ষা নেয়া হবে।

চূড়ান্ত নির্বাচনঃ
• প্রাথমিকভাবে নির্বাচনের পর ৭ দিনের প্রশিক্ষণ ক্যাম্প আয়োজন করা হবে। প্রশিক্ষণ ক্যাম্পে খেলা ও বিভাগ অনুযায়ী ব্যবহারিক পরীক্ষা নেওয়া হবে।
• অতঃপর সর্বশেষ অধ্যায়নরত শ্রেণীর বাংলা, ইংরেজি ও গণিত বিষয়ে লিখিত পরীক্ষা গ্রহণ করা হবে। ৭০% শারীরিক যোগ্যতা/ক্রীড়া নৈপুণ্য, ১০% ব্যবহারিক পরীক্ষা বাকি ২০% লিখিত পরীক্ষার ভিত্তিতে চূড়ান্ত তালিকা প্রকাশ করা হবে।

ট্যালেন্ট হান্ট
বিকেএসপি ভর্তি প্রক্রিয়ার বাইরেও প্রতিভা অন্বেষণের জন্য সমগ্র দেশব্যাপি ‘ট্যালেন্ট হান্ট’ কার্যক্রম পরিচালনার মাধ্যমে সারা দেশ থেকে ট্যালেন্ট খুঁজে বের করে তাদের বিভিন্ন মেয়াদে প্রশিক্ষণ প্রদানের মাধ্যমে উপযুক্ত করে গড়ে তুলে তারপর বিকেএসপির মূল শিক্ষা কার্যক্রমে অগ্রাধিকার ভিত্তিতে ভর্তি করা হয়।

বিকেএসপির কৃতি খেলোয়াড়
বিশ্বের #১ অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান ছাড়াও সৌম্য সরকার, মুশফিকুর রহিম, নাসির হোসেন, এনামুল হক বিজয়, মুমিনুল হক, আবদুর রাজ্জাক এমনকি প্রথম টেস্ট অধিনায়ক নাঈমুর রহমানও ছিলেন বি কে এস পি শিক্ষার্থী।

যোগাযোগের ঠিকানাঃ
বাংলাদেশ ক্রীড়া শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান – বিকেএসপি (b k s p)
জিরানী, আশুলিয়া, ঢাকা-১৩৪৯
টেলিফোনঃ ৭৭৮৯২১৫, ৭৭৮৯২১৬, ৭৭৮৯২১৮, ৭৭৮৯২১৮, ৭৭৮৯৫১৫
মোবাইলঃ ০১৭১২০০৭০৩৮, ০১৭১৩২৪৬০৪০
ইমেইলঃ bksp1983@yahoo.com
ওয়েবসাইটঃ www.bksp.portal.gov.bd www.bksp-bd.org